কোহলিকে বাদ দেওয়া নিয়ে সেহওয়াগকে টেনে এবার বড় মন্তব্য করলেন আসিস নেহেরা

ভারতীয় ক্রিকেটে এই মুহূর্তে সব থেকে বড় প্রশ্ন হল বিরাট কোহলি কে নিয়ে, বিরাট কোহলির ফর্মে না থাকা একটি বড়সড়ো বিতর্ক সৃষ্টি করেছে কারণ বিগত একটা লম্বা সময় ধরে বিরাট কোহলি ভালো ফর্মের তো দূরের কথা ফর্মের কোনরকম ধারে কাছে নেই। এমনকি ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি সিরিজে দুটি ইনিংসে মাত্র ১২ রান করেছেন আর ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে যে টেস্ট ম্যাচটি হয়েছিল সেখানে কোহলি দুটো ইনিংস মিলিয়ে মাত্র 31 রান করেছেন।

এটা যে শুধু সাম্প্রতিক ফরম খারাপ হওয়া সেরকমটা নয় বিগত লম্বা সময় ধরে বিরাট কোহলির এরকম খারাপ ফর্ম চলছে, আর সেই কারণে তাকে বাদ দেওয়া নিয়ে সড়ক হয়েছেন সিনিয়র প্লেয়াররা যেমন কপিল দেব বীরেন্দ্র সেবাগ, তাদের দাবি স্পষ্ট বিরাট অবশ্যই ভারতের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ার কিন্তু বর্তমানে সে ফর্মে নেই তাকে খেলানোটা বোকামি ছাড়া আর কিছুই নয়, আর এবার এই নিয়ে মুখ খুললেন ভারতের প্রাক্তন বোলার আসিস নেহেরা।

আসিস নেহরা জানাচ্ছেন যে, “যখন আপনি ভালো খেলবেন না এবং আপনার ফর্ম থাকবে না সে ক্ষেত্রে আপনাকে ড্রপ করা হয় এটা স্বাভাবিক, কিন্তু এর মধ্যে অনেক যদি অথবা কিন্তু রয়েছে, যখন আপনি বিরাট কোহলির মতো প্লেয়ার হন তখন আপনাকে সরাসরি বাদ দেওয়া উচিত নয়। আমি মানছি যে বিরাট বেশ কিছুদিন ধরে রান করতে পারছে না কিন্তু তাকে দল থেকে বাদ দিয়ে দেওয়াটা কোন সমাধান নয়। আমরা একটা উদাহরণস্বরূপ বিরাটকে নিয়ে আজকে কথা বলছি কিন্তু এরকম সময় রোহিত শর্মারও এসেছিল, আর সে কিভাবে আইপিএলের স্ট্রাগল করেছে সেটাও আমরা দেখেছি।”

তিনি আরো বলেন, যেহেতু এখন ক্রিকেটে তিনটি ফরম্যাট হয়েছে এবং কোন প্লেয়ার যদি তিনটি ফরম্যাটেই ভারতের জন্য খেলে সেক্ষেত্রে সেও কিন্তু ফেল করতে পারে।” অর্থাৎ আসিস নেহেরা স্পষ্টতই এখানে বিরাট কোহলির পাশে দাঁড়ালেন। বিরাট কোহলি কে এই মুহূর্তে বাদ দিয়ে দেওয়া যে সমাধান নয় এমনটা তিনি বলতে চাইলেন যদিও অন্যদিকে ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটাররা যেমন ভেঙ্কটেশ প্রসাদ এবং বীরেন্দ্র শেবাগ তাদের দাবি যুব প্লেয়ারদের অবশ্যই সুযোগ দেওয়া উচিত কারণ কোহলি কোনভাবেই ফর্মের আশেপাশে নেই।

জানিয়ে রাখি যে এই নিয়ে কোহলিকে সুনীল গাভাস্কার ও তোপ দেগেছিলেন আবার অন্যদিকে তিনি এই প্রশ্ন তুলেছেন যে রোহিত শর্মারও কিন্তু ফর্ম নড়বড় করে মাঝে মাঝে কিন্তু আমরা সেই নিয়ে প্রশ্ন তুলি না অথচ বিরাটকে নিয়ে কেন প্রশ্ন তুলছি। চোটের জন্য প্রথম ম্যাচে খেলতে পারেনি বিরাট কোহলি এবং খুব সম্ভবত দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচ থেকেও ছিটকে যেতে পারে বিরাট কোহলি।