নোংরামো করার দায়ে শাস্তি পেলেন বাংলাদেশী ক্রিকেটার !

দক্ষিণ আফ্রিকায় অনূর্ধ্ব–১৯ বিশ্বকাপে আইসিসি-র নিয়মানুযায়ী আচরণবিধি ভেঙে বড় বিপাকে পড়লেন বাংলাদেশের তরুণ ক্রিকেটার। এর দায়ে বাংলাদেশের পেসার মারুফ মৃধাকে মৌখিক ভাবে তিরস্কার করেছে আইসিসি। মঙ্গলবার আইসিসি একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে এ কথা জানিয়ে দিয়েছে। গত শনিবার ব্লুমফন্টেইনে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচে নিয়ম ভেঙেছেন বলে অভিযোগ। জানা গিয়েছে, আইসিসির আচরণবিধির লেভেল ১–এর ২.৫ ধারা ভেঙেছেন মারুফ।ঠিক কি করেছিলেন তিনি। ?

ভারতের বিপক্ষে সেই ম্যাচে ৮৪ রানে হেরে গিয়েছিল বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব–১৯ দল। তবে সেই ম্যাচে মারুফ একাই ৫ উইকেট তুলে নিয়েছিলেন। যদিও বাংলাদেশ হেরে যাওয়ায়, মারুফের লড়াই ব্যর্থ হয়ে গিয়েছিল সেই ম্যাচে। গোদের উপর বিষফোঁড়া আবার, মারুফের বিরুদ্ধে নিয়ম ভাঙার অভিযোগ। ২.৫ ধারা, যেটা মারুফ ভেঙেছেন বলে অভিযোগ, সেই ধারায় বলা হয়েছে, ‘আন্তর্জাতিক ম্যাচে ব্যাটার আউট হওয়ার পর, তাঁর প্রতি এমন কোনও ইঙ্গিত বা অঙ্গভঙ্গি কিংবা আচরণ করা উচিত নয়, যেটা তাঁকে উত্তেজিত করে তোলে।’মারুফের নামের পাশে একটি ডিমেরিট পয়েন্টও যোগ করেছে আইসিসি।

```

গত ২৪ মাসের মধ্যে তাঁর আচরণবিধি ভাঙার ঘটনা এই প্রথম। ভারতীয় অনূর্ধ্ব–১৯ দলের ইনিংস চলার সময়ে এই ঘটনাটি ঘটে ৪৪তম ওভারে। ব্যাটসম্যান আরাভেল্লি আভানিসকে আউট করে আক্রমণাত্মক ভাবে তাঁকে দু’বার ড্রেসিংরুমে ফিরে যাওয়ার অঙ্গভঙ্গি করেন মারুফ।বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, মারুফ নিজের ভুল স্বীকার করে ম্যাচ রেফারির কাছে ক্ষমা চেয়েছে। এবং নিজের শাস্তি মেনে নিয়েছেন। এর জন্য আর আনুষ্ঠানিক শুনানির প্রয়োজন হয়নি। লেভেল ওয়ান আচরণবিধি ভাঙলে ন্যূনতম শাস্তি হিসেবে আনুষ্ঠানিক ভাবে তিরস্কার বা ভর্ৎসনা করা হয়।

সর্বোচ্চ শাস্তি ম্যাচ ফির ৫০ শতাংশ অর্থ জরিমানা এবং একটি কিংবা দু’টি ডিমেরিট পয়েন্ট।অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জমে উঠেছে। ভারত এখনও পর্যন্ত এই টুর্নামেন্টে একটি ম্যাচই খেলেছে। সেটা বাংলাদেশের বিরুদ্ধে। বাংলাদেশ অবশ্য দুই ম্যাচ খেলে ফেলেছে। ভারতের কাছে তারা হেরেছে, আয়ারল্যান্ডকে হারিয়েছে। ভারত এবং বাংলাদেশ টুর্নামেন্টে একই গ্রুপে রয়েছে। তারা গ্রুপ-এ-তে রয়েছে। এই গ্রুপে ভারত রানরেটের বিচারে ২ পয়েন্ট (এক ম্যাচ খেলে) নিয়ে শীর্ষে রয়েছে।

```

আয়ারল্যান্ডেরও পয়েন্ট ২। তবে তারা দু’টি ম্যাচ খেলেছে। আয়ারল্যান্ডের মতো বাংলাদেশরও ২ ম্যাচে ২ পয়েন্ট। তারা রয়েছে তৃতীয় স্থানে। আমেরিকা একটি ম্যাচ খেলে একটিতেই হেরেছে। তারা এই গ্রুপের লাস্টবয়।

বাংলাদেশের পেসার মারুফ নিজের ভুল স্বীকার করে ম্যাচ রেফারির কাছে ক্ষমা চেয়েছে। এবং নিজের শাস্তি মেনে নিয়েছেন। এর জন্য আর আনুষ্ঠানিক শুনানির প্রয়োজন হয়নি।