দুরন্ত জয় ভারতের!নিউজিল্যান্ডকে হোয়াইট ওয়াশ করে অনবদ্য রেকর্ড গড়লো ভারতীয় দল!

নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে অনবদ্য সিরিজে জয় দিয়ে ২০২৩ সাল শুরু করল ভারত। শক্তিশালী নিউজিল্যান্ড দলকে রীতিমতো হোয়াইটওয়াশ করল ভারত। সম্প্রতি পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সিরিজ জিতে ভারতে এসেছিল নিউজিল্যান্ড কিন্তু ভারতের মাটিতে এসে তাদেরকে রীতিমত ধরাশায়ী হতে হয়েছে এবং পরপর তিন ম্যাচ হেরে সিরিজে রীতিমতো হোয়াইটওয়াশ হয়েছে তারা।

মঙ্গলবারের ম্যাচে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড। ম্যাচের শুরু থেকেই আগ্রাসী মেজাজ ব্যাটিং শুরু করেন রোহিতরা। ২০২১ সালের পর এদিনই প্রথম সেঞ্চুরি হাঁকালেন ভারত অধিনায়ক। মাত্র ৮৪ বলে শতরান করেন তিনি। ছয় ছক্কা, ন’টি বাউন্ডারিতে সাজানো ছিল হিটম্যানের ইনিংস। সেঞ্চুরির পরেও আগ্রাসী ব্যাটিং চালিয়ে যান তিনি। বড় শট নিতে গিয়ে ১০১ রানেই আউট হয়ে যান রোহিত।ওয়ানডে ক্রিকেটে প্রায় তিন বছর পর শতরান করলেন হিটম্যান। ইংল্যান্ডের মাটিতে টেস্ট খেলতে গিয়ে শেষ সেঞ্চুরি করেছিলেন রোহিত। এদিনের ইনিংসের পর রিকি পন্টিংয়ের সমসংখ্যক সেঞ্চুরি করে ফেললেন তিনি। ভারতীয় দল প্রথমে ব্যাটিং করে ৩৮৫ রানের একটা বিশাল টোটাল খাড়া করে দেয়।

হার্দিক পান্ডিয়া ৫৪ রানের ইনিংস খেলেছেন বিরাট কোহলি ৩৬ রান করেন, তাছাড়া অন্য কোন ভারতীয় ক্রিকেটারকে খুব বেশি রান করার প্রয়োজন পড়েনি। ভারতের এই বিশাল রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে নিউজিল্যান্ডের তরফ থেকে ডেভন কনওয়ে ১৩৮ রানের ইনিংস খেলেছেন। তাছাড়া নিউজিল্যান্ডের অধিকাংশ ব্যাটসম্যান বড় রান করতে পারেন নি। হেনরি নিকোলস ৪০ বলে ৪২ রানের ইনিংস খেলেছেন তাছাড়া মিচিল 24 রান করেন।

মিচিল সেন্টিনার ২৯ বলে ৩৪ রান করেন এবং মাইকেলব্রেশওয়েল ২২ বলে ছাব্বিশ রান করেন। ২৯৫ রানের শেষ হয়ে যায় নিউজিল্যান্ডের ইনিংস এবং ভারত একটা বিশাল জয় পায়। শেষ পর্যন্ত ভারতীয় দল ৯০ রানের একটি বিশাল মার্জিনে জয়লাভ করে।

এই সিরিজে জয়লাভের মধ্য দিয়ে ভারতীয় দল ঘরের মাটিতে নিউজিল্যান্ডকে হোয়াইটওয়াশ করল। পাশাপাশি ঘরের মাটিতে সিরিজ না হারার এক অনবদ্য রেকর্ড করলে ভারতীয় দল। পাশাপাশি এই সিরিজে জয়লাভের ফলে ওয়ানডে ক্রিকেটে আইসিসি ranking এ এক নম্বর জায়গা দখল করে নিল ভারত।