তোলপাড় ভারতীয় ক্রিকেট!হঠাৎ মেজাজ হারিয়ে বি’স্ফোরক মন্তব্য ভারতের ব্যাটিং কোচের!

মীরপুরে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে নেমেছে ভারত। তার আগে বুধবার সাংবাদিক সম্মেলন করেন ভারতীয় দলের ব্যাটিং কোচ বিক্রম রাঠোর। আর সেই সাংবাদিক সম্মেলনে এক সাংবাদিকের ছুঁড়ে দেওয়া প্রশ্নে হঠাৎ রেগে গেলেন বিরট কোহলিদের ব্যাটিং কোচ। কী প্রশ্ন করেছিলেন সেই সাংবাদিক, যার জন্য মেজাজ হারালেন রাঠোর?

জানা গিয়েছে, মীরপুরে আসার পর থেকেই বিরক্ত ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট। কারণ মীরপুরের পিচ দেখে নাকি মোটেই পছন্দ হয়নি রাহুল দ্রাবিড় এবং তাঁর দলের। যা নিয়ে সেখানকার পিচ কিউরেটরের সঙ্গেও কথা বলেন দ্রাবিড়। পিচ পছন্দ না হওয়ার খবর শোন যেতেই সাংবাদিক সম্মেলনে রাঠোরকে প্রশ্ন করেন সাংবাদিকরা। পিচ সম্পর্কিত একাধিক প্রশ্নের মুখে পড়তে হয় তাঁকে। আর তাতেই মেজাজ হারান তিনি।বাধ্য হয়েই বিক্রম রাঠোর বলেন, ‘যদি পিচ সম্পর্কিত কোনও প্রশ্ন করার থাকে, তাহলে আপনি মিস্টার রাহুল দ্রাবিড়কে গিয়ে করুন। পিচ কিউরেটরের সঙ্গে তাঁর কী কথা হয়েছে, আমরা কেউ জানি না। যদি পিচ সম্পর্কিত কিছু জানার থাকে তাহলে মিস্টার দ্রাবিড় তা বলতে পারবেন।’

তিনি আরো বলেন, ‘ আমাদের দিক থেকে পিচ নিয়ে কোনও সমস্যা নেই। আমরা এখনও পিচ দেখিনি। তবে যা শুনেছি, তাতে বোঝা গিয়েছে, পিচের উপরে মৃত ঘাসের আস্তরন রয়েছে। ফলে এই ধরণের পিচে খেলা সত্যি কঠিন কাজ। তবে এই পিচে যদি আমরা প্রথমে ব্যাট করতে পারি তাহলে আমাদের বড় রান করতে হবে।’ এই মীরপুরেই ওডিআই সিরিজ হাতছাড়া হয়েছিল ভারতের। সিরিজের শেষ টেস্ট সেই মীরপুরেই খলেবন বিরাটরা। আর এই টেস্ট সিরিজ ভারতের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে জায়গা করে নিতে হলে, এই সিরিজ জিততেই হবে।

সুতরাং প্রথম টেস্টে এগিয়ে থাকায় অনেকটাই অ্যাডভান্টেজ ভারতের। কিন্তু মীরপুরের পিচ ভারতীয় দলের ক্রিকেটারদের আত্মবিশ্বাসে জল ঢেলে দিয়েছে। তবে পিচ নিয়ে বিরক্তি প্রকাশ করলেও মোটেই গুরুত্ব দিতে নারাজ বিক্রম। তিনি বলেন, ‘পিচ যাই হোক না কেন খেলতে হবে আমাদের। ফলে একেবারেই আমরা পিচ নিয়ে ভাবছি না। এই পিচে কীভাবে খেলতে হবে সেই দিকে নজর দিচ্ছি আমরা। তবে যদি কিছুটা হলেও টার্নিং ট্র্যাক বানাতো তাহলে ভালো হত।’

পাশাপাশি বাংলাদেশের বোলারদের প্রশংসা করে রাঠোর বলেছেন, ‘বাংলাদেশের বোলারাও বেশ ভালো বল করেছে গত ম্যাচ। অনেক চ্যালেঞ্জর মুখে পড়তে হয়েছে আমাদের ব্যাটারদের। আশা করছি গত ম্যাচের মতো এই ম্যাচও উপভোগ্য হবে।’