বিশ্ব ক্রিকেটে জন্ম নতুন সুপারস্টারের!২০ বছর বয়সী দ:আফ্রিকান ইংল্যান্ডকে শেখালেন T20 কিভাবে খেলে!

একটা লম্বা সময় ধরে বিশ্ব ক্রিকেটের উপর সব থেকে খতরনাক হাড হিটার হয়ে রাজ করেছে সাউথ আফ্রিকা ক্রিকেটার ডি ভিলিয়ার্স। কিন্তু তার অবসর নেওয়ার পর থেকে সাউথ আফ্রিকার টিমে সেই ধরনের আর কোন হিটার বলে ছিল না যে অন্তত ডিভিলিয়ার্স কে টক্কর দিতে পারে। তবে মাত্র কুড়ি বছর বয়সের এই যুবক এবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পদার্পণ করলেন।

ইংল্যান্ড এবং সাউথ আফ্রিকার মধ্যে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করে ২৩৪ রানের মত একটি বিশাল স্কোর দাঁড় করিয়ে দেয় ইংল্যান্ড যার পিছনে মূলত ছিল বেস্টও এবং মঈন আলীর অসাধারণ পার্টনারশিপ যার দৌলতে ইংল্যান্ড এত বড় রানের পাহাড় খাড়া করতে পারে। প্রথমে এই স্কোর দেখে ম্যাচটি একতরফা ইংল্যান্ড জিতে যাবে এরকম মনে করলেও সাউথ আফ্রিকার তরফ থেকে লড়াইয়ে নামেন মাত্র কুড়ি বছর বয়সী এই যুবক যার নাম ট্রিস্টান স্টাবস।

ব্যাট করতে নেমে প্রথম ওভারি ডি কক আউট হয়ে যায় কিন্তু অন্য ওপেনার হেন্ড্রিক্স ৫৭ রান করেন মাত্র ৩৩ বলে। এরপর সাউথ আফ্রিকার তরফ থেকে আর কেউ দাঁড়াতে পারেনি কিন্তু মাত্র ২০ বছর বয়স এই যুবক মাত্র ২৮ টি বল খেলে ৭২ রানের মতো ঝড়ো ইনিংস খেললেন ইংল্যান্ডের এত ভালো বোলিং লাইন আপের বিরুদ্ধে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তিনি ঘোষণা করে দিলেন যে তিনি এবার যেকোনো দলের বিরুদ্ধে যে কোন কিছু করার ক্ষমতা রাখেন।

জানিয়ে রাখি যে ২৩৪ রানের পিছনে তাড়া করে সাউথ আফ্রিকা ১৯৩ রান করে কিন্তু সবার নজর কেড়েছে এই যুবক ক্রিকেটার। জানিয়ে রাখি যে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের তরফে ডেভিস ব্রেভিস নামক যে প্লেয়ারটি খেলেছিল যাকে বেবি ডিভিলিয়ার্স বলা হচ্ছিল এখন ট্রিষ্টানকেই সবাই ডিভিলিয়ার্সের জায়গা পূরণকারী বলেই66 দাবি করছেন।

জানিয়ে রাখি যে এই দিন ম্যাচে সাউথ আফ্রিকা খুব ভালো বোলিং করলেও মঈন আলি এবং জনি বেষ্ট ব্যাট করতে নামতেই যেন বল করতেই ভুলে যায় সাউথ আফ্রিকা জঘন্য বোলিং করতে দেখা যায় সাউথ আফ্রিকার বোলারদের যার দৌলতে রানের পাহাড় খাড়া করে ইংল্যান্ড।।