ভারতের পরাজয়ের দিনেও ঐতিহাসিক রেকর্ড গড়লেন উমরান মালিক!

ভারতীয় ক্রিকেট দলের ব্যাটিং বরাবর খুবই শক্তিশালী এবং দুরন্ত ব্যাটিং যেন চলেই আসছে ভারতীয় দলে কখনো ব্যাটসম্যানের কমতি হয় না বা ভারত কখনো সেভাবে ব্যাটসম্যানদের জন্য ম্যাচ হারে না কিন্তু একের পর এক ম্যাচে ভারত পরাজিত হয় শুধুমাত্র ভালো বোলারের অভাবে। যেমন নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে পরাজিত হয়েছে ভারত বোলারদের জন্যই। তবে এবার কোথাও ভারতীয় দলের বোলারদের কমতি পূরণ করতে বেশ কিছু নতুন বোলার উঠে আসছে।

আর এই নতুন বোলারদের মধ্যে অন্যতম উমরান মালিক। তাকে নিয়ে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হল যে গতিতে সে বল করছে তার রীতিমতো চমকে দেওয়ার মতো। প্রথম ম্যাচেই সে ১৫০ কিমি বেশি গতিতে বল করেছে এবং সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার ছিল প্রথম ওভারের বোলিং। প্রথম ওভারে একের পর এক বল সে যে গতিতে করেছে তা দেখে রীতিমত অভিভূত ক্রিকেট ভক্তরা।

নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে সুযোগ পেয়ে আগুনে বোলিং করেন ইমরান মালিক। গতির দিক দিয়ে তিনি কোন অংশে খামটি দেননি বরং তিনি যতটা পারেন তত গতিতে বল করেছেন। আর সেই কারণে লাগাতার তিনি ১৪৫ এর উপরেই বল করে গেছেন, নিচে রইল তার প্রথম ওভারের বলের গতি:

তিনি গতিতে বল করতে পারেন এটা সবাই জানে তবে তিনি যে প্রথম ওভারে এইভাবে 147-149 কিমি গতিতে বল করবেন সেটা কেউ ভাবেননি। জাহির খান জানিয়েছেন যে উমরানকে আরো গতিতে বল করার জন্য উদ্বুদ্ধ করতে হবে, গতিতে বল করেছে অবশ্যই বেশি রান দেবে কিন্তু তার সত্বেও তাকে একজন উইকেট টেকার হিসেবে ব্যবহার করা উচিত যে উইকেট নেবে কিন্তু কিছু রানও দেবে।।

পাশাপাশি জানিয়ে রাখবো যে ভারতের কোন পেস বলার আজ পর্যন্ত জীবনের প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে ১৪৯ কিমি গতিতে বল করেনি তাও আবার লাগাতার। তাছাড়া প্রথম ম্যাচে উমরানের সর্বোচ্চ গতি ছিল ১৫৩ কিলোমিটার, ভারতের কোন বোলার তার প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে এত গতিতে বল করেনি।