সচিন তেন্ডুলকারের সবথেকে বড়ো রেকর্ড ভেঙে অনবদ্য বিশ্ব রেকর্ড গড়লেন রোহিত শর্মা !

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে জয়লাভের পরে দ্বিতীয় ম্যাচে আজকে আফগানিস্তানের মুখোমুখি হয়েছে ভারতীয় দল, যদিও অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে খুব বেশি রান করতে পারেননি ভারতীয় ক্যাপ্টেন রোহিত শর্মা তবে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে তিনি সেটা রীতিমতো পুষিয়ে নিলেন এক দুরন্ত অনবদ্য এক সেঞ্চুরি করে। শুধু সেঞ্চুরি নন একের পর এক রেকর্ড তিনি ভেঙেছেন যেখানে কপিল দেব থেকে শুরু করে ক্রিস গেইল সচিন তেন্ডুলকার সবার রেকর্ড ভেঙে চুরমার করেছেন ভারতের হিটম্যান।

১৯৮৩ সালের বিশ্বকাপ হয়তো ভারতের কোন ক্রিকেট ভক্ত ভুলবে না যেখানে প্রথমবারের জন্য বিশ্বকাপের ট্রফি পেয়েছিল ভারতীয় দল যেখানে কেউ কল্পনাও করতে পারেনি ভারতীয় দল বিশ্বকাপ জিততে পারবে এমনকি ভারতের জনতাও তখনও সেভাবে ক্রিকেট দেখতো না তার কারণ ভারতীয় দল সেভাবে খুব শক্তিশালী দল ছিল না, সেই জায়গা থেকে দাঁড়িয়ে বিশ্বকাপ ফাইনালে ওয়েস্ট ইন্ডিজ কে পরাজিত করে ট্রফি যেতে ভারত, আর সেই বিশ্বকাপে ভারতের গণতম সেরা ক্রিকেটার ছিলেন কপিল দেব এবং এক খুবই কঠিন ম্যাচে তিনি জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে মাত্র ৭২ বলে একটি দুরন্ত সেঞ্চুরি করেন, যেখানে ভারতীয় দল মাত্র ৭০ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ম্যাচের রীতিমত পরাজয়ের সামনে দাঁড়িয়ে ছিল সেখানে কপিল দেব নিজেই ১৭৫ রানের ইনিংস খেলেন।

```

কপিল দেবের সেই ১৭৫ রানের ইনিংসের মধ্যে ৭২ বলে যে সেঞ্চুরি তিনি করেছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসে বিশ্বকাপে এত দ্রুত সেঞ্চুরি কেউ করেনি যা রোহিত শর্মা করে দেখালেন আজকে। এত বছর ধরে যে রেকর্ড ছিল সেটা আজকে এসে থামলো। ৪০ বছর পরে কপিল দেবের রেকর্ড ভাঙলেন রোহিত শর্মা। মাত্র ৬৫ বলে সেঞ্চুরি সম্পন্ন করেছেন রোহিত শর্মা। এর পাশাপাশি শচীন তেন্ডুলকারের রেকর্ড ভেঙে ফেলেছেন রোহিত শর্মা । বিশ্বকাপে শচীন তেন্ডুলকার এখনো পর্যন্ত ছটি সেঞ্চুরি করেছিলেন, অথচ রোহিত শর্মা মাত্র তিনটি বিশ্বকাপ খেলে ৭টি সেঞ্চুরি করে ফেললেন। এটাই শেষ নয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ তারকা গেলের রেকর্ড তিনি ভেঙেছেন।

বিশ্ব ক্রিকেটের ইতিহাসে এখনো পর্যন্ত সব থেকে বেশি ছক্কা মারার রেকর্ড ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের ইউনিভার্স বস ক্রিস গেইলের(৫৫১টি)। আর সেই রেকর্ড ভেঙে ফেললেন রোহিত শর্মা(৫৫৫টি)। আগের ম্যাচে এই রেকর্ড ভেঙে যাওয়ার কথা ছিল যদিও রোহিত শর্মা খুব তাড়াতাড়ি আউট হয়ে যাওয়ার ফলে সেটা আগের ম্যাচ সম্ভব হয়নি । রোহিত শর্মার ভালো কর্মে ফিরে আসা বাকি দলগুলির জন্য একটা দুঃস্বপ্ন হতে পারে কারণ তিনি যে কোন বোলিংয়ের বিরুদ্ধে দুর্ধর্ষ ব্যাটিং করে থাকেন।

```

রোহিতের পাশাপাশি এই ম্যাচে দুরন্ত ব্যাটিং করতে দেখা গেছে ভারতের যুব ক্রিকেটার ঈশান কিষান কে। যদিও রাশিদ খানের ফির্কির সামনে আউট হয়ে যান ঈশান কিষান। তবে তারপরেও দুরন্ত ব্যাটিং চালিয়ে যান রোহিত শর্মা এবং বিরাট কোহলি। যেখানে পুরো মাঠ অপেক্ষা করেছিল বিরাট কোহলি এবং নবীনের লড়াই দেখার জন্য।

সব মিলিয়ে সামনে ভারত পাকিস্তান হাই ভোল্টেজ ম্যাচ এর আগে ভারতীয় দলের কাছ থেকে যে ধরনের পারফরম্যান্স আশা করা হয়েছিল সেটা দেখতে পাওয়া গেছে।