শাহিনের চোখে চোখ রেখে রোহিতের এই অবিশ্বাস্য বিশাল সিক্স!বদলে দেয় সব,দেখুন সেই ভিডিও

গ্রুপ লিগে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচের পুনরাবৃত্তি আর চায়নি ভারত। এশিয়া কাপের সুপার ফোরে শুভমন গিল, রোহিত শর্মারা পাল্টা শাহিন আফ্রিদিদের বিরুদ্ধে আক্রমণের স্ট্র্যাটেজি নিয়েছে। প্রথম ম্যাচে ভারত অতিরিক্ত ডিফেন্সিভ হয়ে যাওয়ার ফলে পাকিস্তান ভারতের উপর চেপে বসে যার জন্য ভারত বেশ কয়েকটি উইকেট হারিয়ে ফেলে। তবে রবিবার প্রথম ওভারে শাহিন বল করতে এলে, প্রথম পাঁচটি বল রোহিত অবশ্য খুব সাবধানে খেলেছেন। কিন্তু ওভারের শেষ বলে লম্বা ছক্কা হাঁকান রোহিত। সেই সঙ্গে গড়ে ফেলেন বড় নজিরও।

শাহিনের বলে ফ্লিক করেন রোহিত। এবং সেটা সোজা ওভার বাউন্ডারি হয়ে যায়। আর এই ছক্কার হাত ধরে বিশ্বের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে ওডিআই ক্রিকেটে শাহিন আফ্রিদিকে প্রথম ওভারেই ছক্কা হাঁকানোর রেকর্ড গড়লেন রোহিত। এর আগে আর কোনও ব্যাটার শাহিনকে প্রথম ওভারেই ছয় মারতে পারেননি। সেই দিক থেকে রোহিত গড়ে ফেললেন দুর্লভ নজির।শাহিনকে প্রথম ওভারেই রোহিত ছক্কা হাঁকানোয় আত্মবিশ্বাস পেয়ে গিয়েছিলেন শুভমন গিলও। তিনিও কিন্তু শাহিনকে এদিন পিটিয়ে ছাতু করেন।

```

নাসিম শাহকেই ছাড়েননি শুভমন, রোহিতরা। পাক পেসারদের বিরুদ্ধে এদিন ভারতের দুই ওপেনার আক্রমণাত্মকই ছিলেন। শাদাব খানকেও রোহিত ছাড়েননি। ভারতীয় ব্যাটিং অর্ডার যদি ছন্দে থাকে, তবে তারা নিঃসন্দেহে ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারে। আর সেই প্রমাণ বারবার পাওয়া গিয়েছে। প্রথম তিন ওভারে শাহিন এদিন ৩১ রান দিয়ে বসেন। ৬টি চার এবং ১টি ছক্কা তাঁকে হাঁকানো হয়। বাবর আজম তাঁকে তিন ওভারের বেশি নতুন বলে বল করাতে পারেননি। গ্রুপ লিগের বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ভারত চাপে পড়লেও, এদিন ভয়ডরহীন মানসিকতা নিয়ে খেলতে নেমে পাক বোলারদের একেবারে পিটিয়ে ছাতু করেন ভারতের দুই ওপেনার। দেখুন রোহিতের সেই ভিডিও :

প্রথম উইকেটে রোহিত এবং শুভমন মিলে ১৬.৪ ওভারে ১২১ রান করে ফেলেন। ৪৯ বলে ৫৬ রানের একটি ভালো ইনিংস খেলে রোহিত সাজঘরে ফেরেন। তাঁকে আউট করেন শাদাব খানই। যে শাদাবকে রোহিত এদিন যথেচ্ছ পিটিয়ে ছাতু করেছেন। রোহিতের এই ঝকঝকে ইনিংসে ছিল ৬টি চার এবং চারটি ছয়। রোহিতের পরপরই সাজঘরে ফেরেন আর এক ওপেনার শুভমনও।

```

শুভমন গিলকে আবার ফেরান শাহিনই। শাহিনের বলে শাদাবের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হন ভারতের তরুণ তারকা। ১০টি চারের হাত ধরে ৫২ বলে ৫৮ করে আউট হন শুভমন।প্রসঙ্গত, রোহিত এবং শুভমন মিলে প্রথম উইকেটে ভারতের জন্য যে ভিত গড়ে দিয়েছেন, সেটা যদি পুরো দল বজায় রাখতে পারে, তবে পাকিস্তানের কপালে দুঃখ আছে। এখন দেখার পাক বোলাররা পাল্টা ভারতকে কী ভাবে চাপে ফেলে!

সমস্ত কিছু দেখা যাবে আগামীকাল আবার যখন এই মুহূর্ত থেকেই খেলা শুরু হবে।