সিরিজ হারতেই ভারতীয় দলকে নিয়ে বি’স্ফোরক মন্তব্য করে দিলেন শ্রীলংকার ক্যাপ্টেন শানাকা!

ভারতের মাটিতে আরো একটি দ্বিপাক্ষিক ওয়ানডে সিরিজ। আর সেই সিরিজেও হারের মুখ দেখতে হল শ্রীলঙ্কা দলকে। গত বছর আরব আমিরশাহিতে এশিয়া কাপ জেতার পর থেকে শ্রীলঙ্কা দলের পারফরম্যান্স একেবারেই ভালো নয়। গত বছর টি-২০ বিশ্বকাপেও সে ভাবে ভালো পারফরম্যান্স করতে পারেনি লঙ্কানরা। আর নতুন বছরের শুরুটাও খুব একটা ভালো ভাবে হল না শ্রীলঙ্কা দলের।

ভারত সফরে এসে টি-২০ সিরিজে আগেই তাদেরকে হারের মুখ দেখতে হয়েছিল। এ বার ওয়ানডে সিরিজও হাতছাড়া হল। পরপর দুই ম্যাচে লড়াই করেও ওয়ানডে সিরিজ বাঁচাতে পারল না লঙ্কান বাহিনী। আর সেই হতাশাই ধরা পড়ল শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক দাসুন শানাকার গলাতে। তাঁর মতে, ম্যাচের লড়াইতে ছিল তাঁরা। তবে যথেষ্ট রান করতে পারেনি শ্রীলঙ্কা। স্কোরবোর্ডে বড় রান থাকলেই, ম্যাচের রঙ বদলে যেতে পারত বলে মনে শানাকা।প্রসঙ্গত অসমের গুয়াহাটিতে প্রথম ওয়ানডে-তে অনবদ্য অপরাজিত শতরান করেছিলেন দাসুন শানাকা।

যদিও সেই ম্যাচে ৬৭ রানে হারতে হয়েছিল শ্রীলঙ্কাকে। এ দিন ইডেন গার্ডেনের ম্যাচে দাসুন শানাকা মাত্র ২ রানে আউট হয়ে যান। ম্যাচে লঙ্কান বোলাররা লড়াই করলেও, কাঙ্ক্ষিত জয় এনে দিতে পারেননি। ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে সেই হতাশা স্পষ্ট ভাবে ধরা পড়ল অধিনায়ক দাসুন শানাকার গলাতেও। তিনি বললেন, ‘ম্যাচের লড়াইতে আমরা ছিলাম। তবে আমি মনে করি, যথেষ্ট রান আমাদের ছিল না। আর সেই কারণেই লড়াই করেও দিনের শেষে আমাদেরকে হারতে হল। আমার মনে আছে আমরা ইনিংস শুরুর আগেই আলোচনা করেছিলাম, ২৮০ রান করার বিষয়ে।তবে কুলদীপ দারুণ বল করেছে।

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের সামনেও সুযোগ এসেছিল। বল সুইং করছিল। সেই কারণে আমি আমার বোলারদেরকে বেসিকগুলো ঠিক করতে বলেছিলাম।’প্রসঙ্গত এদিন প্রথমে ব্যাট করে শ্রীলঙ্কা। তবে তারা নির্ধারিত ৫০ ওভারের সম্পূর্ণটা ব্যাটিং করতে পারেনি। মাত্র ৩৯ ওভারেই অল আউট হয়ে যায়। ৩৯.৪ ওভারে মাত্র ২১৫ রানে অলআউট হয় শ্রীলঙ্কা। এ দিন শ্রীলঙ্কার দুই ওপেনার শুরুটা ভালো করলেও কোন ব্যাটার সে ভাবে বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। শ্রীলঙ্কার ওপেনার নুওয়ানিদু ফার্নান্দো অর্ধশতরান করেন। কুশল মেন্ডিস করেন ৩৪ রান। এর পরেই মিডল অর্ডার ব্যাটাররা সমস্যায় পড়েন।

ইনিংসের শেষ দিকে দুনিথ ওয়েলালাগে ৩২ রান করে শ্রীলঙ্কার স্কোরকে ২০০ রানের গন্ডি পার করিয়ে দেন।জবাবে ব্যাট করতে নেমে ভারতের শুরুটাও খুব একটা ভালো হয়নি। তাঁদের টপ অর্ডারের প্রথম তিন ব্যাটার রোহিত শর্মা (১৭),শুভমন গিল (২১) এবং বিরাট কোহলি (৪) কম রানের মধ্যে সাজঘরে ফিরে যান। দলের হয়ে অপরাজিত ৬৪ রানের ইনিংস খেলে একটা দিক ধরে রাখেন কেএল রাহুল। তাঁকে যোগ্য সঙ্গত দেন শ্রেয়স আইয়ার (২৮), হার্দিক পাণ্ডিয়া (৩৬) এবং অক্ষর প্যাটেল (২১)। ফলে ৪৩.২ ওভারেই হাতে চার উইকেট নিয়ে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছে যায় ভারতীয় দল।