মাত্র ১২ রানে ম্যাচ জেতা ভারতকে নিয়ে বি’স্ফোরক মন্তব্য করে দিলেন নিউজিল্যান্ড ক্যাপ্টেন!

পাকিস্তান সফর সেরেই ভারতে এসেছে নিউজিল্যান্ড দল। বুধবার প্রথম ওয়ানডেতে মুখোমুখি হয়েছিল ভারত এবং নিউজিল্যান্ড। যেখানে হাই স্কোরিং ম্যাচের সাক্ষী থাকল দর্শকরা। ম্যাচে উঠল প্রায় ৭০০ রান। ভারতের দেওয়া ৩৫০ রানের জয়ের লক্ষ্যমাত্রা তাড়া করে ৩৩৭ রানে অলআউট হয়ে যায় নিউজিল্যান্ড। ম্যাচে তাদের নায়ক নিঃসন্দেহে বাঁ-হাতি ব্যাটার মাইকেল ব্রেসওয়েল।

অনবদ্য শতরান করে খাদের কিনারা থেকে দলকে টেনে তুলে এনেছিলেন। তবে শেষরক্ষা হয়নি। ম্যাচ শেষে দলনায়ক টম লাথামের গলাতে ধরা পড়ল সেই কথাই। ব্রেসওয়েলের ইনিংসের ভূয়সি প্রশংসা করলেন তিনি। লাথাম স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, ম্যাচে যে পরিস্থিতিতে ব্রেসওয়েল ইনিংসটা খেলেছেন, তা অনবদ্য।সিরিজে কিউয়ি দলের অধিনায়ক টম লাথাম বলেছেন, ‘ব্রেসওয়েলের ইনিংসটা অনবদ্য ছিল। যে পরিস্থিতিতে ম্যাচটা ছিল, সেখানে দাঁড়িয়ে এমন ইনিংস খেলা অনবদ্য। যেখানে দাঁড়িয়ে চার বলে ১২ রান বাকি, এমন পর্যায়ে ম্যাচ পৌঁছে গিয়েছিল। ওই জায়গায় ম্যাচ পৌঁছে দেওয়াটাও নিঃসন্দেহে বড় ব্যাপার।’

তিনি আরো বলেন, ‘জয় না আসায় কিছুটা হতাশ। বড় রান তাড়া করছি, দল সমস্যায় রয়েছে, সেখান থেকে দাঁড়িয়ে এই ইনিংস খেলা নিঃসন্দেহে অনবদ্য বিষয়। আমরা এর আগেও অবশ্য ওর থেকে এমন ইনিংস উপহার পেয়েছি। পরের ম্যাচের জন্য আমরা এই ম্যাচ থেকে অনেকটা আত্মবিশ্বাসকে সঙ্গী করে নিয়ে যাচ্ছি। আমি মনে করি এই উইকেটে বল থেমে থেমে আসছিল।

আমরা দেখেছি ওরা (ভারত) অনেক বেশি কাটার বল করেছে। তবে ব্রেসওয়েল এবং স্যান্টনারের পার্টনারশিপটা অনবদ্য ছিল।’উল্লেখ্য, এ দিন ৩৫০ রানের জয়ের লক্ষ্যমাত্রা তাড়া করতে নেমে একটা সময়ে নিউজিল্যান্ডের স্কোর ছিল ১৩১ রানে ছয় উইকেট। সেখানে দাঁড়িয়ে জুটি বাঁধেন মিচেল স্যান্টনার এবং মাইকেল ব্রেসওয়েল। জুটিতে দু’জনে ১৬২ রান যোগ করেন। স্যান্টনার ৪৫ বলে ৫৭ রান করে আউট হয়ে যান। মাইকেল ব্রেসওয়েল মারকাটারি শতরান করেন। মাত্র ৭৮ বলে করেন ১৪০ রান। তাঁকে এলবিডব্লিউ আউট করে ভারতের জয় সুনিশ্চিত করেন শার্দুল ঠাকুর।

এ দিন মাইকেল ব্রেসওয়েলের ইনিংস সাজানো ছিল ১২টি চার এবং ১০টি ছয়ে। স্ট্রাইক রেট ছিল ১৭৯.৪৮। প্রসঙ্গত এ দিন ভারতের ইনিংসেও অনবদ্য দ্বিশতরান করেন শুভমন গিল। তিনি ১৪৯ বলে ২০৮ রানের একটি অনবদ্য ইনিংস খেলেন। মূলত তাঁর ইনিংসে ভর করেই ভারত ম্যাচ জিতে সিরিজে লিড নিতে সমর্থ হল।