রিকি পন্টিং-এর ঐতিহাসিক রেকর্ড ভেঙে অনবদ্য বিশ্বরেকর্ড গড়লেন রোহিত শর্মা!

এমনটা নয় যে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট অফ ফর্মে ছিলেন রোহিত শর্মা। রান করছিলেন ধারাবাহিকভাবে। তবে একসময় বিরাট কোহলি যে পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিলেন, ঠিক সেরকমই কোনও মতেই রোহিতের ব্যাটে সেঞ্চুরির দেখা মিলছিল না। তবে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজে তিনি যে একটা বড় রান পেতে চলেছেন সেটা প্রথম ম্যাচ থেকেই বোঝা গেছিল কারণ রীতিমতো ভালো ছন্দে ছিলেন তিনি। অবশেষে শতরানের খরা কাটে হিটম্যানের। ধরে ফেললেন অস্ট্রেলিয়ার লেজেন্ড রিকি পন্টিং কে।

ইন্দোরে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজের তৃতীয় তথা শেষ ওয়ান ডে ম্য়াচে দুর্দান্ত শতরান করেন রোহিত। দীর্ঘ তিন বছর পরে ওয়ান ডে ক্রিকেটে সেঞ্চুরির মুখ দেখেন ভারত অধিনায়ক। তিন ফর্ম্যাট মিলিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বেশ কিছুদিন পরে শতরান করেন রোহিত। দীর্ঘ ১৬ মাস পরে ফের ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটে তিন অঙ্কের রানে পৌঁছন তিনি।এর আগে রোহিত ২০২০ সালের ১৯ জানুয়ারি শেষবার ওয়ান ডে সেঞ্চুরি করেন। বেঙ্গালুরুতে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সেই ম্যাচে ৮টি চার ও ৬টি ছক্কার সাহায্যে ১২৮ বলে ১১৯ রান করেন তিনি। মাঝে ১৬টি ওয়ান ডে ইনিংসে ৫টি হাফ-সেঞ্চুরি করেন হিটম্যান। সুতরাং ৩ বছর ৫ দিন অর্থাৎ ১১০০ দিন পরে তিনি ফের একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সেঞ্চুরি করলেন।

রোহিত এর আগে শেষবার আন্তর্জাতিক শতরান করেন ২০২১ সালে ৪ সেপ্টেম্বর তারিখে। ওভালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে ১৪টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ২৫৬ বলে ১২৭ রান করেন হিটম্যান।এই শতরানের সুবাদে একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সব থেকে বেশি সেঞ্চুরি করা ক্রিকেটারেদর তালিকায় যুগ্মভাবে তিন নম্বরে উঠে আসেন রোহিত। তিনি ছুঁয়ে ফেলেন রিকি পন্টিংকে। পন্টিং ৩৭৫টি ওয়ান ডে ম্যাচের ৩৬৫টি ইনিংসে ৩০টি সেঞ্চুরি করেন। রোহিত ২৪১টি ওয়ান ডে ম্যাচের ২৩৪টি ইনিংসে ৩০টি শতরান করেন।

এই নিরিখে রোহিতের সামনে রয়েছেন দুই ভারতীয় সচিন তেন্ডুলকর ও বিরাট কোহলি। সচিন ৪৬৩টি ওয়ান ডে ম্যাচের ৪৫২টি ইনিংসে সব থেকে ৪৯টি শতরান করেন। কোহলি ২৭১টি ওয়ান ডে ম্যাচের ২৬২টি ইনিংসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪৬টি শতরান করেছেন।

ইন্দোরে ৪টি চার ও ৪টি ছক্কার সাহায্যে ৪১ বলে অর্ধশতরান পূর্ণ করেন রোহিত শর্মা। তিনি ৯টি চার ও ৬টি ছক্কার সাহায্যে ৮৩ বলে ব্যক্তিগত শতরান পূর্ণ করেন। শেষমেশ ৮৫ বলে ১০১ রানের ঝলঝকে ইনিংস খেলে সাজঘরে ফেরেন হিটম্যান। ভারত প্রথমে ব্যাট করে ৯ উইকেটের বিনিময়ে ৩৮৫ রানের বিশাল ইনিংস গড়ে তোলে।